ওয়াশিংটন : ভারত চিন সীমান্তের উত্তাপ নিয়ে ফের উদ্বেগ প্রকাশ করল মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র। মার্কিন আইনপ্রণেতা অমি বেরা বলেন ভারত ও চিনের সাম্প্রতিক সমস্যা নিয়ে বেশ উদ্বেগে আমেরিকা। দ্রুত এই সমস্যার সমাধান হওয়া উচিত। চিন অবশ্য আলোচনার মাধ্যমে সমাধানের পথ বের করুক।

শুধু ভারত নয়, চিনের অন্যান্য প্রতিবেশীদের সঙ্গেও আলোচনার রাস্তায় হাঁটা উচিত সেদেশের। শনিবার নিজের অফিশিয়াল ট্যুইটার হ্যান্ডেলে ইন্দো আমেরিকান কংগ্রেসম্যান বেরা জানান ভারত ও চিন দুই দেশকেই মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র অনুরোধ করছে যাতে আলোচনার মাধ্যমে সমস্যার সমাধান করা যায়।

ভারত ও চিন দুই দেশই দীর্ঘদিনের বন্ধুত্ব পালন করেছে। তাই আলোচনার টেবিল থেকে সমাধান বেরিয়ে আসবে বলে আশাবাদী আমেরিকা। এদিন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের আইন প্রণেতা জানান, সীমান্তে একের পর এক সেনা মোতায়েন করছে দুই দেশ, যা সীমান্তের উত্তাপ বাড়াচ্ছে। এই পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে হবে।

সেজন্য সচেষ্ট হতে হবে ভারত ও চিন দুই দেশকেই। তবে এদিন চিনকে কার্যত এক হাত নেন অমি বেরা। তিনি বলেন চিনের আগ্রাসী মনোভাব বিশ্বের বিভিন্ন দেশের মধ্যে অস্থিরতা তৈরি করছে। এই মনোভাবের বদল হওয়া দরকার। প্রকৃত নিয়ন্ত্রণরেখায় চিনা সেনারদের উসকানি বেশিদিন মেনে নেওয়া হবে না।

এর আগে, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট পদপ্রার্থী জো বিডেনের উপদেষ্টা অ্যান্টনি ব্লিনকেন বলেন চিন এমন এক দেশ, যা ভারত ও মার্কিন যু্ক্তরাষ্ট্র দুই দেশের সামনেই কমন চ্যালেঞ্জ তৈরি করেছে। এই পরিস্থিতিতে ভারত ও আমেরিকা একযোগে চিন বিরোধিতা করবে।

ব্লিন কেন বলেন, রাষ্ট্রসংঘের নিরাপত্তা পরিষদে স্থায়ী সদস্য পদ পাওয়া ভারতের অধিকার। এই পদের সবচেয়ে শক্তিশালী দাবিদার ভারত। ক্ষমতায় আসলে জো বিডেন সরকারের প্রাথমিক কর্তব্যগুলির মধ্যে এটি একটি থাকবে। রাষ্ট্রসংঘে এই ইস্যুতে ভারতের পাশে রয়েছে আমেরিকা।

এদিকে, অবশেষে পাঁচ ভারতীয়কে তুলে দেওয়া হল ভারতীয় সেনার হাতে। শনিবার সকালেই তাদের ফিরিয়ে দেওয়া হয়। চিনের মাটিতে তাদের ভারতীয় সেনার হাতে তুলে দেওয়া অরুণাচল প্রদেশের কিবিথু বর্ডার পোস্ট দিয়ে ওই পাঁচ জনকে নিয়ে আসা হয় বলে জানা গিয়েছে।

শনিবার সকালে এই খবর জানান কেন্দ্রীয় মন্ত্রী কিরণ রিজিজু। গত কয়েকদিন আগে অরুণাচল প্রদেশ থেকে পাঁচ ভারতীয়কে অপহরণ করার ঘটনা ঘটে। চিনের সেনাবাহিনী ওই ভারতীয়দের অপহরণ করেছে বলে জানায় অরুণাচল পুলিশ। প্রথম থেকেই তা অস্বীকার করে আসছিল চিন। অবশেষে তারা স্বীকার করে নেয়।

The post চিনের উচিত আলোচনার মাধ্যমে সীমান্ত সমস্যা মেটানো: ওয়াশিংটন appeared first on Kolkata24x7 | Read Latest Bengali News, Breaking News in Bangla from West Bengal's Leading online Newspaper.

Leave a Reply

%d bloggers like this: