গত ৩১ জুলাই কক্সবাজারের টেকনাফে মেরিন ড্রাইভ সড়কের শামলাপুরে পু’লিশ চেকপোস্টে খুব কাছ থেকে গু’লি করে হ’ত্যা করা হয় সে’নাবাহিনীর অবসরপ্রাপ্ত মেজর সিনহা মো. রাশেদ খানকে। সিনহার বড় বোন শারমিন শাহরিয়ার শামলাপুরে বুকে ‘কাম ডাউন’ প্ল্যাকার্ড ঝুলিয়ে ভাইয়ের হ’ত্যার প্রতিবাদ জানিয়েছেন। তার এই প্রতিবাদের ছবি গত সোমবার (১৪ সেপ্টেম্বর) রাতে ভাই’রাল হয়েছে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে।

অ’ভিযোগ আছে, পু’লিশের পরিদর্শক লিয়াকত গু’লি চারটি করেন। পরে মৃ’ত অবস্থায় সদস্য সাময়িক বরখাস্ত হওয়া ওসি প্রদীপও আরও দুটি গু’লি করেন এই কর্মক’র্তাকে। সিনহা হ’ত্যামা’মলার বাদী শারমিন শাহরিয়ার ফেরদৌস। মা’মলায় ওসি প্রদীপ ও লিয়াকতসহ ১৪ জন কারাগারে রয়েছে। ভাইয়ের এমন মৃ’ত্যু মেনে নিতে পারছেন না শারমিন। তাই ভাই হ’ত্যার বিচার দাবিতে দৌড়ঝাঁপ চালিয়ে যাচ্ছেন।

শারমিন শাহরিয়ার ফেরদৌসের এ অ’ভিনব প্রতিবাদের ছবিটি গত সোমবার রাতে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়েছে। শারমিনের এই প্রতিবাদ দেশবাসীর দৃষ্টি আকর্ষণ করেছে ব্যাপকভাবে।

সিনহার বোন

এ ব্যাপারে বাহারছড়া পু’লিশ ফাঁড়ির ইন্সপেক্টর মো. ইয়াসিনের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, তিনি ছুটিতে ছিলেন। গতকালই (মঙ্গলবার) যোগদান করেছেন। তবে তিনিও ফেসবুকে ভাই’রাল হওয়া ছবিটি দেখেছেন। এ কর্মক’র্তা আরও বলেন, ঘটনাস্থলে প্লেকার্ড নিয়ে প্রতিবাদ জানাতে আসার আগে জানালে পু’লিশ অবশ্যই শারমিনকে সব ধরনের সহায়তা দিত। ফেসবুকে ছবি ভাই’রাল হলেও ঠিক কবে শারমিন ঘটনাস্থলে গিয়ে এ প্রতিবাদ জানিয়েছেন, তা কেউ নিশ্চিত করে বলতে পারেননি।

Leave a Reply

%d bloggers like this: